গোলাপি দিয়েই সম্ভব করবেন জয়া

  |  রবিবার, জুন ২৭, ২০২১ |  ৬:২৫ অপরাহ্ণ

জয়া আহসান মানেই অন্যরকম, অনেক না কথা বলার বাক্স। না জয়া আহসান বাকপটু সে কথা বলা হচ্ছে না, বলা হচ্ছে তার ভক্তদের কথা। জয়া প্রসঙ্গে এলেই ভক্তরা যেন শত সহস্র কথা বলতে চায়, শত শত বিস্ময়ের মিশেল থাকে সেসকল না বলা কথায়। জয়া আহসান সম্পর্কে একটা কম প্রশ্ন, প্রশ্ন না বলে বিস্ময় বাক্যও বলা যায়, ‘ক্যামনে সম্ভব!’

হ্যাঁ ঠিক এরকম অজস্র মন্তব্যে ভরে যায় জয়ার ছবির মন্তব্য বাক্সে, একটি ছবি পোস্ট করলেই হলো, যেন হুমড়ি খেয়ে পড়ে নেটিজেনরা। অবশ্য সবচেয়ে ইতিবাচক মন্তব্য তা নয়। কেউ কেউ আসেন ধর্ম শেখাতে, কেউ আসেন নৈতিকতা শেখাতে, কেউ বা কোনটা ঠিক আর কোনটা ঠিক নয় সেটা বলতে আসেন। এসবের অবশ্য উত্তর দেন না জয়া। তিনি থাকেন নিজের মতো করে। আর বাকি ভক্তরা বিস্ময় নিয়েই মন্তব্য করে যান, ইমোজি দিয়ে যান। প্রকাশ করেন ভালোবাসা।

রবিবার জয়া বেশ কয়েকটি ছবি প্রকাশ করেছেন নিজের ফেসবুক হ্যান্ডেলে। ছাদে রোদের নিচে দাঁড়িয়ে গোলাপি অন্তর্বাসের সঙ্গে কালো ট্রাউজার, এমন পোশাকে দ্যুতি ছড়ালেন জয়া। বলছেন, ‘সূর্যকিরণ এবং কিছুটা গোলাপি দিয়ে যে কোনও কিছুই সম্ভব।’ হয়তো আসলেই সম্ভব। না হলে নেটিজেনরা মেতে উঠবেই বা কেন? জয়ার এই পোস্টের নিচে মন্তব্য পড়েছে ৯ হাজারের বেশি। প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন ৮০ হাজারের বেশি মানুষ।

জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসানের বয়স নিয়ে কম জল ঘোলা হয়নি। শোবিজে তার বয়স জানার জন্য অনেক সময় আলোচনাও হয়েছে। বিভিন্ন গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার বয়স দেখানো হয়েছে ৪৪, কোথাও আবার সেটা ৪৬ বলা হয়েছে। এবার ভারতীয় গণমাধ্যম আনন্দবাজারকে জয়া আহসান তার বয়সের কথা জানালেন।

জয়া আহসান জানান, তার বয়স ৩৭ বছরের একদিনও বেশি নয়। উইকিপিডিয়ায় তাকে নিয়ে যেসব তথ্য দেওয়া হয়েছে তার মধ্যে অনেক তথ্যই ভুল দেওয়া আছে।

এই বয়সেও জয়া যেভাবে নিজের শরীর ধরে রেখেছেন তা সচরাচর দেখা যায় না। ফলে ১৮ বছরের তরুণীদের চেয়েও জয়াকে বেশি আকর্ষণীয় মনে হয়। সাধারণত নারী তারকাদের উত্থান হয় ২০ এর কোঠায়। বয়সের সঙ্গে সঙ্গে তাদের প্রোমোশন হয়েছে তন্বী কিশোরী থেকে মা-মাসির চরিত্রে। তবে জয়া ব্যতিক্রম! তার বয়স ৪৭ অথবা ৩৭ যাই হোক না কেন এই মুহূর্তে দুই বাংলার সবচেয়ে কাঙ্ক্ষিত মুখ জয়া আহসান-ই।