বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাংচুরের প্রতিবাদে রাঙামাটিতে বিক্ষোভ

95

রাঙামাটি প্রতিনিধি।।

কুষ্টিয়ায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভাংচুরের প্রতিবাদে রাঙামাটি শহরে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী।

রোববার (৬ ডিসেম্বর) দুপুরে শহরের পৌরচত্বর থেকে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে রাঙামাটি শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় সম্মুখে সমাবেশে মিলিত হয়।

রাঙামাটি জেলা যুবলীগের উদ্যোগে আয়োজিত এই বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন রাঙামাটি জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হাজী মোহাম্মদ মুছা মাতব্বর, রাঙামাটি পৌরসভার মেয়র আকবর হোসেন চৌধুরী, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শহিদুজ্জামান মহসিন রোমান, জেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি শামসুল আলম, জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নুর মোহাম্মদ কাজল, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি সাওয়াল উদ্দিন, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুল জব্বার সুজন, সাধারণ সম্পাদক প্রকাশ চাকমা প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, স্বাধীনতার মাসে এই মৌলবাদীরা আবারও ষড়যন্ত্র শুরু করেছে। ভুল ফতোয়া দিয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করতে উস্কানি দিচ্ছে।

কুষ্টিয়ায় বঙ্গবন্ধুর নির্মানাধীন ভাস্কর্য ভাংচুর করে রাষ্ট্রের মূল কাঠামোয় আঘাত করেছে মন্তব্য করে বক্তারা বলেন, প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ম শেখ হাসিনা কওমি মাদ্রাসার স্বীকৃতি দিয়েছেন। আলাদা বোর্ড গঠন করে দিয়ে সার্টিফিকেটের মর্যাদা দিয়েছেন, পাঁচ শতাধিক মডেল মসজিদ নির্মাণ করছেন। মাদ্রাসার সুপারেন্টেড পদকে অধ্যক্ষ পদে উন্নীত করেছেন। সারাদেশের মসজিদের ইমামদের বিগত ঈদে সম্মানী দিয়েছেন। তারপরও এই মৌলবাদীরা বাংলাদেশ নামক রাষ্ট্রের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নিয়ে উল্টাপাল্টা বক্তব্য দিয়ে দেশে অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরি পাঁয়তারা করছে।

বক্তারা কুষ্টিয়ার মতো ঘটনার পুনরাবৃত্তি রাঙামাটিতে ঘটাতে নাপারে সেই লক্ষ্যে রাঙামাটিতে অবস্থিত বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য স্থানের চারপাশে সিসিটিভি ক্যামেরা স্থাপনসহ পর্যাপ্ত লাইটিংয়ের ব্যবস্থা করার জন্য রাঙামাটি জেলা প্রশাসন ও জেলা পরিষদ কর্তৃপক্ষের প্রতি দাবি জানিয়েছেন।

এদিকে কুষ্টিয়ায় জাতির জনকের ভাস্কর্য ভাংচুরের প্রতিবাদে রাঙামাটির কাপ্তাই, বাঘাইছড়িসহ বিভিন্ন উপজেলায় ক্ষমতাসীনদল আওয়ামীলীগসহ দলটির অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে।